কবি,সাহিত্যিক,সাংবাদিক দাবি করি না--মুহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম বাবু এর ব্লগ--আপন ভূবন ব্লগ - আপন প্রতিভার সন্ধানে 



প্রথম পাতা » মুহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম বাবু এর ব্লগ » কবি,সাহিত্যিক,সাংবাদিক দাবি করি না

কবি,সাহিত্যিক,সাংবাদিক দাবি করি না

লিখেছেন : মুহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম বাবু       ২৩ এপ্রিল ২০১৬ বিকেল ৫:৫৮


১টি মন্তব্য   ৪০০ বার পড়া হয়েছে



আমি সাহিত্যিক দাবি করি না ,সেই যোগ্যতা নেই ,সাংবাদিক না, সেই যোগ্যতা নেই ,সাহিত্য না হোক বাংলা ভাষা মায়ের ভাষাকেভালবাসি, দীর্ঘ একুশ বছর বাংলা ভাষা নিয়ে নিজের মতো যত টুকু পারছি ,করছি,সংবাদ পাঠাই ,অনলাইনে লেখি। কারো কাছে ভালোলাগলে ,আমার ভালো লাগে। নানা বিষয় মাথায় ঘুরপাক খায়,তাই নিয়ে লিখি,যাদের ভালো লাগে প্রকাশ করে,দশটা পাঠালে একটা প্রকাশ করে. অনেক সময় কোথায় পাঠিয়েছি মনেও থাকে না,চোখে পড়লে শেয়ার করি,নিজের বলগে লিখি,অনলাইন পত্রিকার ব্লগেলিখি।কাউকে অনুরোধ করি না ,বিশেষ করে কবিতা,গল্প সমসাময়িক বিষয়ে লেখা নিয়ে অনুরুধ করি না। অনেক দিন ধরে লেখাপাঠানোতে অদেখা এক পরিচয় কাজ করে.অবসরে লেগে থাকি , সিঙ্গাপুরের বাংলার কন্ঠ,বাংলাদেশের ঢাকা টাইমস ২৪.কম এ বেশিলেখা সংবাদ আসে. সম্প্রতি প্রথম আলো ,এমটি নিউজ ,ব্যাঙের ছাতার মতো অনলাইন পত্রিকা,সবার ঠিকানা উম্মুক্ত,পাঠাই ,প্রকাশকরে.প্রবাসে থেকেও নিজের সুযোগ,সাধ্য মতো বিদেশের ,দেশের সংগঠনের সাথে কাজ করি শখের বসে,এই লেখালেখি থেকে আজও একটি পয়সা আয় হয়নি।স্কুল জীবনে টিফিনের পয়সার মতো আজও নিজের খরচ থেকেই যা পারি ,সংগঠনের জন্য চেষ্টা করি.অর্থ দিয়ে না পারলে শ্রম দিয়ে।এতে ভুল ভ্রান্তি অস্বাভাবিক নয়.সৃষ্টির জন্য করি ধ্বংসের জন্য নয়.
নিজের নামের আগে কবি লিখিনা , যদিও কবিতা হাজার ছাড়িয়েচে বহু আগেই,গল্পকার ,সাহিত্যিক নামের আগে পরে জুড়ে দেই না,কারণ আমার পেশা আমি একজন শ্রমজীবি,আমি একজন ডিপ্লোমা ইন সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং সার্টিফিকেট ধারী ঢাকা পলিটেকনিকথেকে। দেশে প্রথম চাকরি সাইট ইঞ্জিনিয়ার হলেও সৌদি আরবে ফোরম্যান পদবি নিয়ে প্রবাসের কর্ম জীবন শুরু।তার পর আমার শিক্ষার চেয়েও বড় পদে কাজ করেছি। ২০০৮ সালে যখন এগারো বছরের সৌদি প্রবাসের ইতি টানি আমার পদবি ছিলো বিল্ডিংমেইনটেনেন্স স্পেশালিস্ট। তার বাইশ দিন পর পলিটেকনিক ছাত্র জীবন থেকে অদ্যাবধি আমার বেস্ট ফ্রেন্ড কাজী শিহাব উদ্দিন লিটনের সহায়তায় সিঙ্গাপুরে আসি,সাইট ইঞ্জিনিয়ার হিসাবে।এখন প্রজেক্ট ইঞ্জিনিয়ার ,মাঝে একটিং ম্যানাজার ও ছিলাম কয়েক মাস.
লেখালেখি ,মঞ্চে অভিনয় ছোট বেলা থেকে।লেখায় ধার,আর ব্যাকরণের দক্ষতা বা বিলাসিতা না থাকলেও আপন মনে লিখি। সিঙ্গাপুরের বাংলার কন্ঠের সাথে ২০১১ সালে যুক্ত থেকে লেখা হয়.কারণ বেশি প্রকাশিত হয়েছে।আর ফেসবুক মোবাইল টাইপিং এরসুবিধা বেড়ে যাওয়ায় প্রখর সূর্য্য তাপে,বৃষ্টির রিনিঝিনি উম্মাদনায় ,কফি টাইমে ,লাঞ্চ ব্রেকে, ,ভূমি থেকে গভীরে ,সুউচ্চ ইমারতেরচূড়ায় ,ঢালাই চলা কালেও মোবাইলের বাটন চলে ফেসবুকের স্টেটাসে।হয়তো হয়ে যায় কবিতা ,নির্ঘুম রাতে ,সোডিয়ামের আলোতে কিভাবে হয়ে যায় পংতি কিংবা চরণ.আমার লেখার কতো ধরন।
বন্ধুরা বিরক্ত হয় জানি।কিন্তু একটি বিশেষ প্রাণীর লেজ যেমন সোজা হয় না , কতিপয় লোকের তিরস্কারে, লেখা থামে না! সময় নিয়েবার বার সংস্শোধন করে আজও লেখা হয় না। বাসে ,পাতাল ট্রেনে চলে টিপাটিপি মোবাইলে। নিজের অর্থে হোক,বাংলার কন্ঠেরউত্সাহে হোক,বাংলাদেশের এ বি এম সোহেল রশিদ সাহেবের সাথে কথার ছলে হোক ,ফেস বুক গ্রুপ এর বদৌলতে হোক ,একটিউপন্যাস,তিনটি কবিতার বই ,বেশ কয়েকটি সম্মিলিত কবিতা সংকলন, অনলাইনে ঢাকা টাইমস , নোয়াখালী ওয়েব,ডিজিটালসময়,প্রথম আলো ,ভোরের কাগজ,বিডি প্রতিদিন,বাংলা মেইল,দেশ বিদেশ ,সকালের আলো ,আপন ভুবন, গণমাধ্যম এমটিনিউজ,ইউর নিউজ সহ নানা পত্রিকায় একাধিক লেখা এসেছে। তার পর ও কোন দিন কারো লেখা সংশোধনে সাহস করিনি,কারণ বরঞ্চঅগ্রজ ,অনুজদের শরনাপন্ন হয়েছি ,জানি ,আমার অপূর্ণতা,নিজেকে কখনই কবি সাহিত্যিক দাবি করি না , করিনি দাবি আমিসাংবাদিক।
প্রবাসে থাকার কষ্ট ,যন্ত্রণা,পরিবারের জন্য আকুতি,দেশের জন্য মায়া,অনিয়ম ,দুর্নীতি,ধরম নানা বিষয় মাথায় আসে বলেই লিখি।তারপর ও বলি এ আমার শখ, নেশা.পেশা নয় , এ আমার আল্লাহর দান,মা বাবার দোয়া ,স্ত্রী ,বন্ধুদের,বর্তমানে আমার মেয়ে মীমেরপ্রশংসাও রয়েছে।
আমি কবি,সাহিত্যিক,সাংবাদিক নই.তবে এই লেখালেখির আড়ালে মনের অজান্তে হয়তো অমর হবার স্বপ্ন লুকিয়ে আছে.যা মতেই ঠিকনয়,হতে পারে অলিক স্বপ্ন। আমার লেখায় ,আমার সাংগঠনিক কাজে কেউ কষ্ট পেলে ক্ষমা চাই.আমৃত্যু থাকতে চাই মানবতারসেবায়,আমার লেখায়। লেখা পড়ে ভাবতে পারেন আত্মপ্রচারণার নতুন কৌশল ,একেবারেই না ,এই ল্জগতে নতুন নই মঞ্চে উঠেছি, সেবিরাশি সালে আজো সঙ সাজি প্রয়োজনে। সবার লেখা সবার ভালো লাগবে,সব লেখায় সুলিখিত হবে এমন নয়,তবে অকবির কবিতাওকবিতা হয়.গল্প হয়.মস্তিস্কের শিরায় জন্ম নেয়া একটি শব্দ লাগতে পারে এই সমাজের ভালো কাজে,সেই দিনের অপেক্ষায়।
সিঙ্গাপুর থেকে




মুহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম বাবু,সিঙ্গাপুর
ব্লগ লিখছেন ১ বছর ৭ মাস ১৯ দিন, মোট পোষ্ট ৭১টি, মন্তব্য করেছেন ০টি,          



এই ধরনের আরো কিছু পোস্ট.


এই জ্বালা আর প্রাণে সহে না

কখন বাবর আলী আর নেই

দিতে পারিনি নারীর সম্ভ্রমের সন্মান

তবুও মানবতা বেঁচে থাকুক ...

মানবতার ডাকে রোহিঙ্গাদের পাশে বাংলাদেশ,সেনাবাহিনী ,সাধারণ জনগণ
 

মন্তব্য সমূহঃ

১. ২৪ এপ্রিল ২০১৬ দুপুর ১:৩৮
মোঃ গালিব মেহেদী খাঁন বলেছেন: যিনি লেখেন তিনি তার মনের তাগিদেই লেখেন। মনের ক্ষুধা মেটাতে একজন লেখক অকৃপণ হাতে লিখে চলেন। কোন প্রত্যাশা যেমন তার লেখনীকে ক্ষুরধার করতে পারে না তেমনি কোন হতাশা তার লেখাকে থামাতেও পারে না।
লেখকের আসল প্রত্যাশা নিজের ভাবনার ডানা মেলে দেয়া। যে ডানার যত শক্তি তা অতিক্রম করে তত পথ। আর যে ভাবনার যত শক্তি তা প্রভাবিত করে তত জন। এখানে লেখা তার নিমিত্ত। লেখার বা লেখকের সাফল্য প্রভাবিত করার ক্ষমতার উপর। আপনার উত্তরোত্তর সমৃদ্ধি কামনা করছি। ভাল থাকুন নিরন্তর।



মন্তব্য করতে লগিন করুন।

ইমেইল: পাসওয়ার্ড: রেজিস্ট্রেশন করুন